Monthly Archives: June 2019

কৃপন সেই ব্যক্তি, যে রাসূলুল্লাহ স: এর উপর দরুদ পাঠ করে না

darood shareef er fajilot 17

Darood Shareef er Fajilot ৪৮. হযরত কা’ব ইবনে উজরা রা: হইতে বর্ণিত। তিনি বলেন, একদা নবী করীম স: ইরশাদ করিলেন: তোমরা মিম্বরের নিকটবর্তী হও। আমরা হাজির হইলাম। অতঃপর হুজুর স: যখন মিম্বরের প্রথম সিঁড়িতে পা মোবারক রাখিলেন বলিলেন, আমীন। অর্থাৎ আল্লাহ্ তা’য়ালা আপনি কবূল করুন। আবার যখন দ্বিতীয় সিঁড়িতে উঠিলেন, বলিলেন, আমীন। পুনরায় তৃতীয় সিঁড়িতে উঠিয়া বলিলেন, আমীন। খোৎবা শেষে হুজুর স: যখন মিম্বর হইতে অবতরণ করেন, আমরা জিজ্ঞাসা করিলাম, ইয়া রাসূলাল্লাহ্ স:! অদ্য মিম্বরে উঠিবার সময় যাহা কিছু শুনিলাম ইতিপূর্বে তাহা কখনও শুনি নাই। রাসূলুল্লাহ্ স: ইরশাদ করিলেন, এই মাত্র হযরত জিবরাঈল আ: আসিয়া বলিলেন, ধ্বংস হউক ঐ ব্যক্তি …

Read More »

যারা দরুদ পড়ে না, তারা আল্লাহর রহমত থেকে দূরে নিক্ষিপ্ত হবে

darood shorif er fajilot 16

Darood Shorif er Fajilot ৪৬. হযরত আবূ হুরায়রা রা: থেকে বর্ণিত। রাসূলুল্লাহ্ স: মিম্বরে উঠলেন এবং তিনবার আমীন, আমীন, আমীন বললেন। প্রশ্ন করা হলো ইয়া রাসূলাল্লাহ্ স:! আপনি মিম্বরে উঠার সময় তিনবার আমীন বললেন ? উত্তরে তিনি স: বললেন, জিবরাঈল আ: আমার নিকট এসে বললেন, যে ব্যক্তি রমযান মাস পেলো, কিন্তু তার গুনাহ মাফ হলোনা এবং জাহান্নামে গেলো, আল্লাহ্ তা’আলা তাকে আপন রহমত থেকে দূরে নিক্ষেপ করুন। আপনি বলুন,আমীন। তাই আমি আমীন বললাম। যে ব্যক্তি পিতামাতা দু‘জনকে অথবা তাদের একজনকে পেয়ে তাদের সেবা না করে মারা গেলো এবং জাহান্নামে গেলো, আল্লাহ্ তা‘আলা তাকে রহমত থেকে দূরে নিক্ষেপ করুন। আপনি বলুন, …

Read More »

যারা আমার উপর দরুদ পড়ে না, তারা হবে কিয়ামতের দিন হতভাগ্য

darood sharif er fazilot 15

Darood Sharif er Fazilot ৪৩. হযরত আবূ সাঈদ রা: থেকে বর্র্ণিত। নবী স: বলেছেনঃ কোন সম্প্রদায় যখন কোন মজলিসে বসে কিন্তু সেখানে তারা যদি আল্লাহ্ তা’য়ালার যিকির না করে এবং তাদের নবী স:এর উপর দরুদ শরীফ পাঠ না করে, তবে তা তাদের জন্য আফসোস ও ক্ষতির কারণ হবে। ইচ্ছা করলে আল্লাহ্ তা’য়ালা তাদের শাস্তি দিবেন আর ইচ্ছা করলে তাদের তিনি মাফ করে দিবেন। (ফাতহুল কাবীর, ৩য় খন্ড, পৃ:নং-৮৫, হাদীস নং-১০৫৯৮) (জামে‘য়েল কাবীর, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২০৮১৮, হাদীস নং-৬৬০, হরফে মীম পরি:) (জামে‘য়েস ছগীর মেন হাদীসেল বাশীর, ২য় খন্ড, পৃ:নং-২৭১, হাদীস নং-৭৮৮৬) যারা আমার উপর দরুদ পড়ে না, তারা হবে কিয়ামতের দিন …

Read More »

প্রত্যেক দু‘আ পর্দায় আবৃত থাকে, যে পর্যন্ত না দরুদ পাঠ করা হয়

darood sarif er fazilot 14

Darood Sarif er Fazilot ৪০. হযরত আলী রা: থেকে বর্ণিত। তিনি বলেছেনঃ প্রত্যেক দু‘আ পর্দায় আবৃত থাকে, যে পর্যন্ত না মুহাম্মাদ স:-এর উপর দরুদ পাঠ করা হয়। (বায়হাকী শরীফ, ২য় খন্ড, পৃ:নং-২১৫) (শো‘য়াবুল ঈমান, ৩য় খন্ড, পৃ:নং-১৩৫) (জামে‘য়ে আল-আহাদীস, ৩১তম খন্ড, পৃ:নং-৩৯৩, মুসনাদে আলী ইবনে আবী তালিব রা:পরি:) (জামে‘য়েল কাবীর, ১ম খন্ড, পৃ:নং-১৫৮২৮, হাদীস নং-৬৯৬, হরফে কাফ পরি:) (সহীহ কুনুঝুস সুন্নাহ্, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২৩, হাদীস নং-১০) (কানঝুল উম্মাল ফি সুনানেল আকওয়াল, ১ম খন্ড, পৃ:নং-৪৯০, হাদীস নং-২১৫৩) (মেশকাতুল মাসাবীহ, ৩য় খন্ড, পৃ:নং-৫৬৯) (ফাতহুল কাবীর, ২য় খন্ড, পৃ:নং-৩০৪, হাদীস নং-৮৭১৯) (আল-মু‘জামুল আওসাতে, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২২০) (মাওসূ‘আতে আতরাফেল হাদীস, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২১১২৬০, হরফে …

Read More »

যে আমার উপর দরূদ পড়ে না সে বেহেশতের বিপরীত পথে চলছে

darud sarif er fajilot 13

Darud Sarif er Fajilot ৩৭. আমর ইবনে দীনার রহ: হযরত আবূ জাফর রা: থেকে বলেছেন যে, রাসূলে পাক স: এরশাদ করেছেন, যে আমার উপর দরূদ পড়ে না সে বেহেশতের বিপরীত পথে চলছে। (মুকাশাফাতুল ক্বূলূব, পৃ:নং ১০৭, আমানত ও তাকওয়াহ অধ্যায়) ৩৮. আব্দুর রহমান ইবন ইব্রাহীম রহ:…..হযরত সাহল ইবনে সা‘দ সা‘য়িদী রা: সূত্রে নবী স: থেকে বর্ণিত। তিনি স: বলেনঃ যার অযূ নেই, তার নামাজ হয় না, আর যে অযূর সময় বিসমিল্লাহ্ বলে না তার অযূ হয়না। আর যে ব্যক্তি নবী স:- এর উপর দরুদ পড়েনা, তার নামাজ হয় না এবং যে ব্যক্তি আনসারদের ভালবাসে না তার নামাজ হয় না। (ইবনে …

Read More »

যে ব্যক্তি দরুদ পাঠাতে ভুলে যায়, সে জান্নাতের পথই ভুলে যায়

dorud shorif er fojilot 12

Dorud Shorif er Fojilot ৩৪. হযরত ইবনে আব্বাস রা: থেকে বর্নিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ্ স: বলেছেন: যে ব্যক্তি আমার প্রতি দরুদ পাঠাতে ভুলে যায়, সে জান্নাতের পথই ভুলে যায়। (ইবনে মাজাহ শরীফ, ১ম খন্ড, পৃ:নং-৩৪৫, সালাত অধ্যায়, হাদীস নং-৯০৮, ইফাবা) (তিবরানী শরীফ, ১০ম খন্ড, পৃ:নং-৩২৩, হাদীস নং-১২৬৪৮) (মা‘রেফাতুস সুনান লেল-বায়হাকী, পঞ্চদশ খন্ড, পৃ:নং-১৬৫, হাদীস নং-৫৮৭০) (জামে‘য়েল কাবীর, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২৪৬৮৪, হাদীস নং-২৩৩৬, হরফে মীম পরি:) (মু‘জামুল কাবীর, দ্বাদশ খন্ড, পৃ:নং-১৮০, হাদীস নং-১২৮১৯) (মুসনাদে সাহাবা, ৩০তম খন্ড, পৃ:নং-১৩০, মুসনাদে আব্দুল্লাহ ইবনে আব্বাস রা:পরি:) (সহীহ কুনুঝুস সুন্নাহ্, ১ম খন্ড, পৃ:নং-২৩, হাদীস নং-১৩) (কানঝুল উম্মাল ফি সুনানেল আক্বওয়াল, ১ম খন্ড, পৃ:নং-৫০৮, হাদীস নং-২১৬০) …

Read More »